এবার ‘বিশ্বভারতী’ থেকে প্রশ্ন চুরি! বাতিল হল পরীক্ষা, তদন্তে পুলিশ

দ্য বেঙ্গল পোস্ট প্রতিবেদন, বীরভূম, ১৪ ফেব্রুয়ারি: না, “নোবেল চুরি” র মতো স্তম্ভিত হয়ে যাওয়ার মতো সংবাদ না হলেও, এও এক লজ্জার ঘটনা! গত ১০ ই ফেব্রুয়ারি, বুধবার ‘বিশ্বভারতী’র (Visva Bharati) সংগীত ভবন থেকে খোয়া যায় প্রশ্নপত্র। ফলে, বাতিল করা হল রবীন্দ্র সংগীত ও রবীন্দ্র নৃত্য, হিন্দুস্থানি ক্লাসিক্যাল মিউজিক এবং নাটক বিভাগের স্নাতক ও স্নাতকোত্তরের প্রশ্নপত্র। যথাক্রমে, ১১, ১২ ও ১৩ ই ফেব্রুয়ারি এই পরীক্ষাগুলি ছিল। ‘বিশ্বভারতী’র মতো ঐতিহ্যমণ্ডিত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে প্রশ্ন চুরি হওয়া এবং সেজন্য তিন-তিনটি পরীক্ষা বাতিল হয়ে যাওয়ার ঘটনা ফের বেআব্রু করে দিল, ‘কবিগুরু’ প্রতিষ্ঠিত বিশ্ববন্দিত এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শৃঙ্খলা ও নিরাপত্তার বিষয়টিকে। গতকাল (শনিবার), সাংবাদিক বৈঠক করে পরীক্ষা বাতিলের কথা জানান সঙ্গীত ভবনের অধ্যক্ষ স্বপন কুমার ঘোষ। পাশাপাশি, ‘বিশ্বভারতী’র তরফে প্রশ্নপত্র খোয়া যাওয়ায়, শান্তিনিকেতন থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

thebengalpost.in
বিশ্বভারতী :

প্রসঙ্গত, বিষয়টি জানাজানি হতেই এই বিষয়ে কি পদক্ষেপ নেওয়া হবে সেই সংক্রান্ত একটি বৈঠক করেন বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ। ‘সংগীত ভবন’ এর অধ্যক্ষ স্বপন কুমার ঘোষ প্রশ্নপত্র খোয়া যাওয়া নিয়ে এই তিনটি বিভাগের স্নাতক ও স্নাতকোত্তর পরীক্ষা বাতিল করতে হয়েছে বলে জানান। পরিবর্তিত সময়ে এই পরীক্ষাগুলি নেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি। তবে, গুরুত্বপূর্ণ এই প্রশ্নপত্র খোওয়া যাওয়ার কারণে, শান্তিনিকেতন থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে বলেও সংবাদমাধ্যমক জানান তিনি। অন্যদিকে, বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষও বিভাগীয় তদন্ত করছে বলে জানান তিনি। সংগীত ভবনের অধ্যক্ষ বলেন, এর আগে কখনো এই রকম ঘটনা সংগীত ভবনে ঘটেনি। অপরদিকে, সংগীত ভবনের অধ্যাপিকা শ্রুতি বন্দ্যোপাধ্যায় বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে একটি মামলা রুজু করেছেন। সেই মামলা চলাকালীন সমস্ত সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে সঙ্গীত ভবনে তার ঘর সীল করে দিল বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ। এদিন সাংবাদিক বৈঠকে সেকথাও জানানো হয়।

আরও পড়ুন -   এবার করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেলেন প্রাক্তন ভারতীয় ফুটবলার