“সভা-র‍্যালি অনেক হয়েছে, এবার মানুষকে বিচার করতে দিন”, নির্দেশ কলকাতা হাইকোর্টের! এবার বড় জনসভা বাতিল করল বিজেপিও, করোনা সংক্রমিত মুখ্য নির্বাচন কমিশনার থেকে মনমোহন সিং, রাহুল গান্ধী

দ্য বেঙ্গল পোস্ট প্রতিবেদন, ২০ এপ্রিল : করোনার বাড়বাড়ন্তে বাতিল হচ্ছে একের পর এক পরীক্ষা, ছাত্র-ছাত্রীদের ক্লাস করতে হচ্ছে অনলাইনে। কিন্তু, সবকিছু উপেক্ষা করেই রাজনৈতিক দলগুলির মিটিং-মিছিল চলছিল জোরকদমে। এই পরিস্থিতিতে, কলকাতা হাইকোর্টে একাধিক জনস্বার্থ মামলা হয়। সেরকমই একটি মামলায় আজ প্রধান বিচারপতি টি বি এন রাধাকৃষ্ণণের বেঞ্চ রাজ্যের সমস্ত রাজনৈতিক দলের নেতাদের উদ্দেশ্যে ভর্ৎসনার সুরে বলেন, “সভা-র‍্যালি অনেক হয়েছে, এবার মানুষকে বিচার করতে দিন।” যারা মানুষের সেবা করবে বলে লড়াই করছে, তারাই এই অতিমারীর সময়ে হাজার হাজার মানুষ নিয়ে জনসভা-র‍্যালি করছে! এ নিয়ে, তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করে কলকাতা হাইকোর্ট। করোনা বিধি মেনে ভোট করার পরামর্শ দেওয়া হয় এবং জনসমাগম রুখতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করতেও বলা হয়। মানুষের স্বার্থ উপেক্ষা করে, এখনও কেন সভা-সমাবেশ হচ্ছে রাজ্যকে তার ব্যাখ্যা দেওয়ার কথা বলেন প্রধান বিচারপতি। তবে, রাজ্যের তরফে আইনজীবী জানিয়েছেন, “এই মুহূর্তে রাজ্যের কিছু করার নেই, নির্বাচন কমিশনকেই সিদ্ধান্ত নিতে হবে।” এই বিষয়ে রাজ্যকে এফিডেভিট দিয়ে নিজেদের বক্তব্য জানানোর কথা বলা হয়েছে।

thebengalpost.in
মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুশীল চন্দ্র করোনা আক্রান্ত :

এদিকে, করোনা’র দ্বিতীয় ঢেউয়ে সারা দেশের সাথে সাথে এ রাজ্যও যখন বেসামাল হয়ে পড়ছে ক্রমশ, সেই সময় বামেরাই প্রথম বড় মিটিং মিছিল সমাবেশ থেকে সরে এসেছিল। এরপর, একে একে তৃণমূল কংগ্রেস, কংগ্রেসও বড় সমাবেশ বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কিন্তু, বিজেপি সিদ্ধান্ত নিল আজ! দলের মুখপাত্র শমীক ভট্টাচার্য সাংবাদিক বৈঠক করে আজ জানিয়েছেন, “করোনা পরিস্থিতিতে জনগণের স্বার্থে বড় মিটিং মিছিল সমাবেশ বাতিল করছে বিজেপি।” তবে, সর্বাধিক ৫০০ জন নিয়ে মিটিং হবে। প্রধানমন্ত্রীর মিটিং গুলিও বাতিল করা হয়নি! সেই মিটিং এও সর্বাধিক ৫০০ জন থাকবে বলে জানানো হয়েছে। তবে, বিভিন্ন মহল থেকে ইতিমধ্যেই দাবি উঠতে শুরু করেছে, করোনা বিধি মেনে শুধুমাত্র ভোট টুকু হোক, কোন মিটিং মিছিল সমাবেশের প্রয়োজন নেই। মানুষ আগে থেকেই ঠিক করে রেখেছে কাকে ভোট দেবে!

thebengalpost.in
করোনা আক্রান্ত রাহুল গান্ধী :

এদিকে, করোনা আক্রান্ত হয়েছেন দেশের মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুশীল চন্দ্র। সংক্রমিত হয়েছেন নির্বাচন কমিশনার রাজীব কুমারও। উল্লেখ্য যে, গত ১৩ ই এপ্রিল মুখ্য নির্বাচন কমিশনার সুনীল অরোরা’র স্থলাভিসিক্ত হয়েছেন সুশীল চন্দ্র। তার আগে তিনি নির্বাচন কমিশনার ছিলেন। করোনা সংক্রমিত হওয়ার পর, তিনি বাড়িতে থেকেই নিজের কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন বলে জানা গেছে। অন্যদিকে, গতকাল প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং এর পর আজ কংগ্রেস সাংসদ রাহুল গান্ধী’র করোনা রিপোর্টও পজিটিভ এসেছে। তিনিও হোম আইশোলেশনে আছেন। করোনা আক্রান্ত হয়েছেন টলিউডের সুপারস্টার জিৎ এবং অভিনেত্রী শুভশ্রী গাঙ্গুলী চক্রবর্তীও। তাঁরাও হোম আইশোলেশনে আছেন বলে জানা গেছে।

thebengalpost.in
করোনা আক্রান্ত জিৎ শুভশ্রী :

আরও পড়ুন -   'নৈতিকতা' থেকেই পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা পরিষদের 'কর্মাধ্যক্ষ' পদ থেকে ইস্তফা সবংয়ের বিজেপি প্রার্থী অমূল্য মাইতির