সব রেকর্ড ভেঙে রাজ্যে করোনা সংক্রমিত ৯৮২ জন! পশ্চিম মেদিনীপুরে ১২ জন সংক্রমিত, শুধু মেদিনীপুরেই ১০, আরো বাড়ানো হবে টেস্ট

thebengalpost.in
চলছে ভ্যাকসিনেশন :

দ্য বেঙ্গল পোস্ট প্রতিবেদন, পশ্চিম মেদিনীপুর, ৩১ মার্চ: টেস্ট বাড়ানোর সাথে সাথেই বাড়ল করোনা আক্রান্তের সংখ্যা! কিছুটা কমে মঙ্গলবার রাজ্যে করোনা সংক্রমিত হয়েছিলেন ৬২৮ জন। কিন্তু, টেস্ট হয়েছিল প্রায় ১৮,০০০। অপরদিকে, বুধবার টেস্ট হল প্রায় ২৪,০০০। করোনা আক্রান্তের সংখ্যাও বেড়ে দাঁড়াল ৯৮২! করোনা সংক্রমণের দ্বিতীয় পর্বে এই প্রথম হাজারের এত কাছাকাছি পৌঁছে গেল দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা। শুধু কলকাতাতেই গত চব্বিশ ঘণ্টায় আক্রান্ত ৩৮০ জন (মৃত্যু ১ জনের) এবং উঃ ২৪ পরগণায় ২১২ (মৃত্যু ১ জনের) জন। গত চব্বিশ ঘণ্টায় রাজ্যে মোট মৃত্যু হয়েছে ২ জনের।

thebengalpost.in
রেকর্ড সংখ্যক করোনা সংক্রমণ :

অপরদিকে, গত আটচল্লিশ ঘণ্টায় পশ্চিম মেদিনীপুর জেলায় ২২ জন (মঙ্গলবার ১২ জন ও বুধবার রাতের রিপোর্ট অনুযায়ী ১০ জন) করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে মেদিনীপুর শহরেই ১০ জন, সদর ব্লকে ১ জন, খড়্গপুর ও সংলগ্ন এলাকায় ৫ জন, ঘাটাল এলাকায় ৪ জন, ডেবরা এলাকায় ১ জন, কেশপুরে ১ জন করোনা সংক্রমিত হয়েছেন। এই বিষয়ে জেলা স্বাস্থ্য দপ্তরের পক্ষ থেকে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হচ্ছে বলে জানা গেছে। জেলার উপ মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক ডাঃ সৌম্যশঙ্কর সারেঙ্গী জানিয়েছেন, “আরটিপিসিআর (RT-PCR) টেস্ট বাড়ানো হচ্ছে। ১ লা এপ্রিল থেকে প্রতিদিন কমপক্ষে ৮০০ টি আরটিপিসিআর টেস্ট করা হবে মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজের ল্যাবরেটরি (VRDL) তে। ঝাড়গ্রাম জেলার ৩০০ টি নমুনার পরীক্ষাও হবে এখানে। এছাড়াও, সংক্রমিতদের সংস্পর্শে থাকাদের দ্রুত চিহ্নিত করে, টেস্ট করা হবে। চিকিৎসার বিষয়েও দ্রুত ও কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। জেলার কন্ট্রোল রুম পুনরায় খোলা হয়েছে। ভ্যাকসিনেশন প্রক্রিয়াও চলছে যথারীতি।” তবে, এখনও পর্যন্ত করোনা আক্রান্তদের মধ্যে মারাত্মক কোনো উপসর্গ দেখা যায়নি। মৃদু বা স্বল্প উপসর্গযুক্ত আক্রান্তদের তাই হোম আইশোলেশনে রেখেই চিকিৎসা পরিষেবা দেওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন জেলার স্বাস্থ্য কর্তারা। একইসাথে, কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের নির্দেশিকা অনুযায়ী, সারা দেশ জুড়েই ভ্যাকসিনেশন প্রক্রিয়ার উপর জোর দেওয়া হচ্ছে।

আরও পড়ুন -   নবান্ন অভিযানে 'নিখোঁজ' দীপক পাঁজার খোঁজ মিলল, খুশির হাওয়া পাঁশকুড়ার পরিবারে