পশ্চিম মেদিনীপুরে কলেজ ছাত্রীর রহস্যজনক মৃত্যু! ধর্ষণ করে খুনের অভিযোগ পরিবারের

দ্য বেঙ্গল পোস্ট প্রতিবেদন, পশ্চিম মেদিনীপুর, ৩ মে: এক কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষণ করে খুনের অভিযোগ উঠল পাশের বাড়িতে কাজ করতে আসা দুই শ্রমিকের বিরুদ্ধে! সোমবার বিকেল সাড়ে তিনটা-চারটা নাগাদ ঘটনাটি ঘটেছে, পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার পিংলা থানার জামনা গ্রামে। মৃতা তরুণীর পরিবারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, প্রতিবেশী একজনের বাড়ি সংস্কারের কাজ করছিল ২ জন‌ শ্রমিক (রাজমিস্ত্রি) ও ১ জন মহিলা শ্রমিক। যে বাড়িটি সংস্কার করা হচ্ছিল তা বসবাসের বাড়ি থেকে ৫০-১০০ মিটার দূরে, কিছুটা নির্জন এলাকায়। সেই বাড়ি থেকেই মেয়ের ধর্ষিত ও ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করেন বলে জানিয়েছেন মৃতা তরুণীর বাবা সহ পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা। পিংলা থানার পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে নিয়ে গেছে এবং অভিযুক্ত ৩ জনকেই আটক করে নিয়ে গেছে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য। মহকুমা পুলিশ আধিকারিক জানিয়েছেন, তদন্ত শুরু করা হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের ভিত্তিতে দোষীদের খুব শীঘ্রই গ্রেফতার করা হবে।

thebengalpost.in
ধর্ষণ করে খুনের অভিযোগ :

মৃতা তরুণী’র বাবা জানিয়েছেন, সোমবার আর পাঁচটা দিনের মতোই দুপুর আড়াইটা-তিনটা নাগাদ তিনি, তাঁর স্ত্রী ও ছোট মেয়ে (মৃতা তরুণী) ভাত খেয়ে ওঠেন। তারপর, মেয়ে যায় বাড়ির পেছনে কলঘরে থালা-বাসন ধোওয়ার জন্য। এরপরই, মেয়ের কথায় তিনি বাসন ধোওয়ার সাবান আনতে বাড়ির ভেতরে যান। ফিরে এসে আর মেয়েকে দেখতে পাননা! সকলে মিলে খোঁজাখুঁজি শুরু করেন। ঘন্টাখানেক পরে, তাঁদের বাড়ির পেছনে ওই কলঘর থেকে কিছুটা দূরে যেখানে ওই বাড়ির কাজ চলছিল, সেখানে যান তরুণীর বাবা। সেখানেই বেশ কিছুক্ষণ খোঁজাখুঁজির পর, একটি প্রায় অন্ধকার বারান্দা থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় মেয়ের মৃতদেহ উদ্ধার করেন তিনি! তাঁর এবং মৃতা তরুণী’র কাকু, কাকিমা সহ সকলের অভিযোগ, অর্ধনগ্ন অবস্থায় মেয়ের অন্তর্বাস গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছিল! সেই অবস্থায় মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। পরিবারের সদস্যরা স্পষ্ট অভিযোগ জানিয়েছেন ওই শ্রমিকরা ধর্ষণ করে খুন করেছে। তারপর, গলায় মেয়েরই উর্ধাঙ্গের অন্তর্বাসের ফাঁস দিয়ে, ঝুলিয়ে দেওয়া হয়! মৃতার কাকিমা বললেন, “ওই দুই শ্রমিক ছাড়া এই কাজ আর কে করবে বলুন? ওই পাষন্ডদের আমরা ফাঁসি চাই।” ডেবরা কলেজের নিউট্রিশন অনার্সের ফোর্থ সেমিস্টারের (দ্বিতীয় বর্ষের) ছাত্রী, বছর কুড়ির আপাত শান্ত, নিরীহ এই মেয়েটির সাথে যারা এই কাণ্ড ঘটিয়েছে, তাদের ফাঁসি চাইছে সারা পিংলা বাসীও!

thebengalpost.in
এই জায়গা থেকেই উদ্ধার করা হয় মৃতদেহ :

আরও পড়ুন -   নাটকীয় পরিণতির দিকে এগোচ্ছে সুশান্ত মামলা, গ্রেফতার রিয়া চক্রবর্তী'র ভাই সৌভিক ও সুশান্তের প্রাক্তন ম্যানেজার স্যামুয়েল মিরান্ডা